আত্মঘাতী এই স্বঘোষিত ধর্মগুরু!

 

বাংলা hunt ডেস্ক : এই স্বঘোষিত ধর্মগুরুর জীবন একটা সময় ছিল যথেষ্ঠ রঙিন ও বিলাসিতায় ভরা। কিন্তু সেই রঙিন জীবনের হাতছানি উপেক্ষা করে ধর্মগুরুর জীবন জীবন বেছে নিয়েছিলেন। কিন্তু সেই জীবনেও ইতি টানলেন আত্মঘাতী হয়ে। ইনি মধ্যপ্রদেশের স্বঘোষিত ধর্মগুরু ভাইয়ু মহারাজ। আজ নিজ বাসভবনে গুলি চালিয়ে আত্মঘাতী হন ভাইয়ু মহারাজ। একসময় তিনি মডেলিংয়ের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। এরপর রঙিন জীবনের হাতছানিকে উপেক্ষা করে তিনি ধর্মগুরুর জীবনে পদার্পণ করেন। তাঁর ভক্তের তালিকায় ছিলেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রতিভা সিং পাটিল। তিনি মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিংহ চৌহানের গত প্রতিমন্ত্রীর পদের আহ্বানও পেয়েছিলেন গত এপ্রিল মাসে।

যদিও সেই আহ্বানে তিনি প্রত্যাখান করেন। একজন সন্তের কাছে রাজনীতি বা কোনও পদের গুরুত্ব নেই বলে জানিয়েছিলেন। কিন্তু সেই তিনি কেন এমন চরম পদক্ষেপ নিলেন তানিয়ে ধন্দে তাঁর পরিবার ও ভক্তরা। আজ তিনি নিজের ঘরে গুলি চালিয়ে আত্মঘাতী হন। গুলির আওয়াজে পরিবারের সদস্য ও ভক্তরা ছুটে গিয়ে দেখেন বন্দুক হাতে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে আছেন ভাইয়ু মহারাজ। এরপর তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। প্রসঙ্গত, এই স্বঘোষিত ধর্মগুরু ভাইয়ু মহারাজ ঠিক কি কারণে তা স্পষ্ট নয়। ইন্দৌরের ডিআইজি এইচ সি মিশ্র জানিয়েছেন, ঠিক কি কারণে ধর্মগুরু ভাইয়ু মহারাজ আত্মঘাতী হয়েছেন তার তদন্ত শুরু হয়েছে। সম্ভাব্য সব দিক খতিয়ে দেখা হচ্ছে। উল্লেখ্য, তাঁর ভক্তের তালিকায় রয়েছেন দেবেন্দ্র ফঢ়ণবীশ সহ মহারাষ্ট্রের প্রায় সকল মুখ্যমন্ত্রী সহ বহু রাজনৈতিক নেতা ও অভিনেতা। প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রতিভা পাতিলও তাঁর ভক্তের তালিকায় ছিলেন।