ইন্দোনেশিয়ায় মসজিদের ধ্বংসস্তুপ থেকে দুদিন পর জীবিত উদ্ধার!

বাংলা hunt ডেস্ক : রবিবারের ভূমিকম্পে ভয়াবহ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ইন্দোনেশিয়ার লম্বক দ্বীপ। দূরন্ত গতিতে উদ্ধার চলছে। আর সেই উদ্ধারকার্যের মধ্যেই এক বিস্ময়কর অভিজ্ঞতার স্বাক্ষী থাকল ইন্দোনেশিয়া জাতীয় উদ্ধারকারী দল। কেননা মসজিদের ধ্বংসস্তুপে আটকে থাকার দুদিন পর জীবিত উদ্ধার হলেন এক ব্যক্তি। উল্লেখ, রবিবার ইন্দোনেশিয়ার লম্বক দ্বীপে রিখটার স্কেল অনুযায়ী ৭ মাত্রার শক্তিশালী ভূমিকম্প অনুভূত হয়। এই ভয়াবহ ভূমিকম্পে নিহতের সংখ্যা ৯৮ জন। কিন্তু এদিকে ভূমিকম্পের দুদিন পর লম্বকের একটি মসজিদের ধ্বংসস্তুপ থেকে মঙ্গলবার এক ব্যক্তিকে অক্ষত অবস্থায় জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে।
ইন্দোনেশিয়ার ওই ক্ষতিগ্রস্থ মসজিদটির ধ্বংসস্তুপ থেকে জাতীয় উদ্ধারকারী দল জীবিত একজনকে উদ্ধার করে। জাতীয় উদ্ধারকারী দলের এক আধিকারিক জানান, রবিবার ৭ মাত্রার শক্তিশালী ভূমিকম্পের পর মসজিদটি ধ্বংসস্তুপে পরিণত হয়। সে সময় ৫০ জনের একটি দল সেখানে নামাজ পড়ছিলেন। জীবিত উদ্ধার হওয়া ওই ব্যক্তিও তাদের মধ্যে একজন। তিনি মসজিদের ধ্বংসস্তূপের নীচে চাপা পড়ে গিয়েছিলেন। এখনও কোনও ব্যক্তি ওই মসজিদে আটকে রয়েছেন কিনা তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

প্রসঙ্গত, গত রবিবারের এই ভূমিকম্পে শত-শত ঘরবাড়ি ধ্বংসস্তুপে পরিণত হয়েছে। হাজার হাজার মানুষ আশ্রয় হারিয়েছেন। মাত্র এক সপ্তাহের মধ্যে এটি ছিল দ্বিতীয় ভয়াবহ ভূমিকম্প।
এদিকে ভূমিকম্পের পর বিমানবন্দর বন্ধ থাকায় কয়েকশ’ পর্যটক ইন্দোনেশিয়ায় আটকা পড়েছেন বলে জানা গিয়েছে।তবে দুদিন পর ওই ব্যক্তি জীবীত অবস্তায় উদ্ধার হওয়ায় একটি কথার উল্লেখ্য করা যেতেই পারে,’ রাখে হরি মারে কে?’ সেই ঘটনার স্বাক্ষী থাকল ইন্দোনেশিয়ার ওই মসজিদ।

আরও পড়ুন   নো প্যান্ট সাবওয়ে রাইড ডে'-তে সামিল হয়ে প্যান্ট ছাড়াই মেট্রোয় উঠে চমকে দিলেন এই নায়িকা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


  • Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
    error: