অভিনেতা দেবের পর মুখ্যমন্ত্রী মমতা ! সাবধানবাণী সুপ্রিমকোর্টের

 

বাংলা hunt ডেস্ক : অভিনেতা তথা সাংসদ দেবের পর এবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে নিয়ে কেউ ট্রল করলে তার উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে তার পরিচিতি এবং জনপ্রিয়তা সারা দেশে। মুখ্যমন্ত্রী পদটি হল অত্যন্ত সম্মানের। রাজ্যের মানুষ তাকে সম্মানের সাথে বিবেচনা করে এই পদের জন্য উপযুক্ত মনে করেই ভোট দিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর আসনে বসিয়েছেন। তাই তার প্রতি সকলের সম্মান অটুট থাকুক এটাই সকলের কাম্য। কিন্তু বেশ কিছু মাস যাবৎ শোনা যাচ্ছে বেশ কিছু ট্রল পেজগুলিতে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে নিয়ে কুরুচিকর ট্রল বানানো হচ্ছে। দিনের পর দিন এগুলির মাত্রা বাড়ছে। আর সাধারণ মানুষও সেগুলিকে মজা হিসেবে লাইক, শেয়ার এবং কমেন্টের মাধ্যমে উপভোগ করছেন।

ফলে দিনের পর দিন এই ট্রোল পেজগুলির পাবলিশিটি হচ্ছে। তবে সুপ্রিম কোর্টের নতুন রায় ঘোষনার পর সাইবার ক্রাইম দপ্তর থেকে জানানো হয়েছে ফেসবুক বা অন্য কোনো সোশাল নেটওয়ার্কে মুখ্যমন্ত্রী ও যেকোনো সম্মানীয় ব্যক্তিকে নিয়ে ট্রল মূলক পোস্ট পাবলিশ করলে সাথে সাথে সেই পেজ অ্যাডমিনকে অ্যারেস্ট করা হবে। হতে পারে দশ বছরের জেল, সাথে পঞ্চাশ হাজার টাকার জরিমানা।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় একটি টুইট বার্তায় জানিয়েছেন- “শুধু আমায় কেন? কোনো মানুষকেই অশ্রদ্ধা, বা অসম্মান করা উচিৎ নয়।” তিনি এও জানান এই ধরনের কুরুচিকর আচরন আমাদের শিক্ষিত সমাজের অপমান, গোটা জাতির অপমান। মমতা বন্দোপাধ্যায়কে নিয়ে ট্রল বা ব্যাঙ্গমূলক পোস্ট কে ঘিরে কড়া পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে কলকাতা পুলিশের তরফ থেকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *