আফরাজুল সেখের মেয়েকে চাকরির নিয়োগ পত্র দিল মালদা জেলা প্রশাসন

মালদাঃ গত ২০১৭ সালের ৬ই ডিসেম্বর রাজস্থানে লাভজেহাদি কান্ডে মৃত মালদার কালিয়াচক আফরাজুল সেখের মেয়েকে চাকরির নিয়োগ পত্র দিল মালদা জেলা প্রশাসন। মঙ্গলবার মৃত আফরাজুল সেখের স্ত্রী গুলবাহার বিবির হাতে তার মেয়ের নিয়োগ পত্র তুলে দেন জেলা শাসক কৌশিক ভট্টাচার্য। মালদা শহরের মহিলা আবাসনে সহায়িকার কাজ করবেন রেজিনা খাতুন। মৃতের স্ত্রীকে রাজ্য সরকার পেনশন চালু করেছে ইতিমধ্যে। এদিন মৃত আফরাজুলের স্ত্রী গুলবাহার বেওয়া জানিয়েছেন, তার বাড়িতে কোন পুত্র সন্তান নে তিনটি কন্যা সন্তান তাদেরও বিয়ে হয়ে গেছে। সেই সময় মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছিলেন, তার বাড়িতে একটি চাকুরির ব্যাবস্থা করে দেওয়া হবে। সেই কথামতো মঙ্গলবার এটি নিয়োগপত্র জেলাশাসক কৌশিক ভট্টাচার্য্য একটি নিয়োগপত্র তুলে দেন গুলবাহার বেওয়ার হাতে। আগামী ৭ দিনের মধ্যে মৃত আফরাজুলের এক কন্যা রেজিনা খাতুন কাজে যোগ দিবেন। মহিলা আবাসে সহায়িকার পদে যোগ দেবেন তিনি। জেলাশাসক কৌশিক ভট্টাচার্য্য জানিয়েছেন, রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে মৃত আফ্রাজুল সেখের স্ত্রী গুলবাহার বেওয়ার পেনশন চালু করা হয়েছে। তার একটি মেয়েকে চাকরির নিয়োগপত্র দেওয়া হয়। রাজ্য সরকারের কথামত সে নিয়োগপত্র তুলে দেওয়া হয় গুলবাহার বেওয়ার হাতে। আগামী ৭ দিনের মধ্যে মৃত আফরাজুলের কন্যা কাজে যোগ দিবেন।
হাতে নিয়োগপত্র পেয়ে কান্নায় ভেঙে পড়েন আফরাজুলের স্ত্রী গুলবাহার। রাজ্য সরকার যে কথা রেখেছে সে বিষয়ে খুশি তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *